বার্সেলোনা ছাড়বেন? অবশেষে মুখ খুললেন মেসি

গত মৌসুমে কত নাটকই না হলো! লিওনেল মেসি তার এত বছরের সম্পর্কচ্ছেদ করতে চাইলেন, চাইলেন বার্সেলোনা ছেড়ে দিতে। কিন্তু আইনের মারপ্যাঁচে ফেলে তাকে আটকে দিল বার্সা কর্তৃপক্ষ।

মেসি অবশ্য সামনের মৌসুমেই ‘ফ্রি’ হয়ে যাবেন। তাকে তখন নিতে পারবে যে কোনো ক্লাব। আইনের আর কোনো প্যাঁচ থাকবে না। গতবার তো একপ্রকার জোর করেই বেঁধে রাখা হয়েছিল। এবার তো তিনি চলেই যাবেন, কার সাধ্য আটকে রাখার?

সত্যিই কি তাই? গত মৌসুমে মেসি-বার্সা নাটকের পর অনেক ঘটনাই ঘটেছে। যার সঙ্গে সবচেয়ে বড় ঝামেলা ছিল, সেই বার্সা প্রেসিডেন্ট হোসে মারিয়া বার্তোমেউ শেষ পর্যন্ত পদত্যাগ করেছেন। নতুন কোচ এসেছেন, সব কিছু নতুন করে সাজানো হয়েছে। এখনও কি মেসি চলে যাবেন?

মেসি যাবেন কি থাকবেন, সেটি নিয়ে গণমাধ্যমে নানা ধরনের গুঞ্জন শোনা গেছে। এর বেশিরভাগই ছিল ইংলিশ ক্লাব ম্যানচেস্টার সিটিকে ঘিরে। গত মৌসুমেই ম্যানসিটিতে চলে যাওয়ার সম্ভাবনা ছিল মেসির। সামনের মৌসুমে শুধু ম্যানসিটি নয়, আর্জেন্টাইন সুপারস্টাকে দলে টানতে দৌড়ঝাঁপ শুরু করে দিয়েছে ফরাসি ক্লাব প্যারিস সেন্ট জার্মেইও (পিএসজি)।

কিন্তু মেসি কি চান? এতদিন এই বিষয়ে স্পষ্ট করে কিছু না বললেও অবশেষে মুখ খুললেন বার্সা দলপতি। স্বীকার করলেন, গত মৌসুমে খারাপ সময় গেছে তার। তবে এখন নাকি ন্যু ক্যাম্পে সুখেই আছেন।

হ্যাঁ, এমন কথাই বলেছেন মেসি। স্প্যানিশ টিভি চ্যানেল ‘লা সেক্সতা’র সঙ্গে আলাপে তিনি বলেন, ‘সত্যটা হলো, আমি এখন ভালো আছি। এটা ঠিক, গ্রীষ্মে (গত মৌসুমে) আমার খুব খারাপ সময় কাটছিল। এটা আগের ঘটনা থেকে। যেভাবে মৌসুমটা শেষ হয়েছিল, বুরোফ্যাক্স এবং অন্য সব কিছু…মৌসুমের শুরুতে আমি সেগুলো নিয়েই ভাবছিলাম।’

মেসি যোগ করেন, ‘কিন্তু আজ আমি ভালো আছি। সামনে যা কিছু আছে সবগুলোর জন্যই আমি প্রাণপণ লড়ব। আমি রোমাঞ্চিত। আমি জানি ক্লাব কঠিন সময়ের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। ক্লাব লেভেল এবং বার্সেলোনার যা কিছু আছে সব নিয়েই। তবে আমি সামনের দিকে ভালো কিছুর আশায় আছি। ’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *